ঘুমধুমে বন্দুক যুদ্বে রোহিঙ্গা মাদক ব্যবসায়ী নিহত

প্রকাশ: ২০২০-০৭-৩০ ২১:০৩:৩৭

 

রফিকুল ইসলাম,উখিয়াঃ

বাংলাদেশ ও মিয়ানমার সীমান্তের ঘুমধুমে পুলিশের সাথে বন্দুকযুদ্ধে এক রোহিঙ্গা নিহত হয়েছে। সে চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী। অন্যদিকে উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্পে সন্ত্রাসীদের হাতে অপর রোহিঙ্গা খুনের ঘটনা ঘটেছে। বৃহস্পতিবার (৩০ জুলাই) ভোরে এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে।

নাইক্ষ্যংছড়ির থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ আলমগীর হোসেন বলেন, ইয়াবা পাচারের খবর পেয়ে ঘুমধুম সীমান্তে পুলিশ অবস্থান নেয়। এসময় মাদক কারবারিরা পুলিশ লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশ পাল্টা গুলি বর্ষণ করে। উভয়পক্ষের গোলাগুলিতে শাহ আলম নামের এক রোহিঙ্গা গুলিবিদ্ধ হয়। তাকে উদ্ধার করে পাশ্ববর্তী হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। এসময় পুলিশের ২ জন সদস্যও আহত হয়।

এসময় ঘটনাস্থল থেকে ১টি দেশীয় তৈরী এলজি, ৩ রাউন্ড কার্তুজ এবং ৪০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে। মৃত আসামী সহ পলাতক আসামীদের বিরুদ্ধে নাইক্ষ্যংছড়ি থানায় একটি হত্যা, অস্ত্র ও মাদক মামলা রুজু হয়েছে। নিহত শাহ আলম ঘুমধুম সীমান্তের ওপারে মিয়ানমারের তুমব্রু লেটওয়ের সাবেক চেয়ারম্যান ছিলেন। ২০১৭ সালে বাংলাদেশে পালিয়ে এসে উখিয়ার কুতুপালং -৭ ক্যাম্পে আশ্রয় নেয়।

ট্যাগ :